ভারত–পাকিস্তান মহারণ কাল, ধারা বদলাতে চান রোহিত শর্মা

আজ শনিবার থেকে শুরু হচ্ছে টি২০ বিশ্বকাপের সুপার টুয়েলভ পর্ব। আগামীকাল রবিবার মুখোমুখি হবে বিশ্ব ক্রিকেটের পরাশক্তি ভারত ও চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তান।

কিন্তু ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে তো? মেলবোর্নে ম্যাচের দিন রয়েছে বৃষ্টির সম্ভাবনা। শুক্রবারও বৃষ্টি হয়েছে। ম্যাচের আগের দিন প্রথামাফিক সংবাদ সম্মেলনে এসেছিলেন ভারত অধিনায়ক রোহিত শর্মা। এসেই বলে দিলেন, “বৃষ্টির উপর তো আর আমাদের নিয়ন্ত্রণ নেই। আমরা পুরো প্রস্তুতি নিয়েই রবিবার মাঠে আসব। বৃষ্টির জন্য খেলায় ওভার সংখ্যা কমতে পারে। সেই পরিস্থিতির জন্যও আমরা প্রস্তুত আছি।”

তবে বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে টস যে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নিতে পারে সে কথা জানাতে ভোলেননি রোহিত শর্মা।

সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ যে তথ্য উঠে আসছে, তাহলো ২০১৩ সালের পর ভারত আর আইসিসি ট্রফি জেতেনি। ২০১৫ বিশ্বকাপে সেমিফাইনালে হেরে বিদায় নেয়। ২০১৬ টি২০ বিশ্বকাপেও শেষ চারে বিদায়। ২০১৭ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে হার, এবং ২০১৯ বিশ্বকাপে সেমিফাইনালে বিদায়। আর গত টি২০ বিশ্বকাপে তো গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নিতে হয়েছিল। রোহিতের কথায়, “এটা আমাদের কাছে সত্যিই চ্যালেঞ্জ। সাম্প্রতিক অতীতে আইসিসি টুর্নামেন্টে বড় ম্যাচগুলোয় আমরা প্রত্যাশা অনুযায়ী খেলতে পারিনি। তবে সুযোগ আসবে। সেই সুযোগ কাজে লাগাতে হবে।”

এরপরই রোহিতের সংযোজন, “৯ বছর আগে শেষবার আইসিসি ট্রফি জিতেছিল ভারত। তারপর থেকে ব্যর্থতা। এই ব্যর্থতা ঘোচানোই আমাদের কাছে চ্যালেঞ্জ। আমরা একটা একটা করে ম্যাচ ধরে এগিয়ে চলব।”

গত বিশ্বকাপের ব্যর্থতা থেকে ভারত যে শিক্ষা নিয়েছে, তা উল্লেখ করে রোহিত বলেছেন, “ক্রিকেটারদের আমরা স্বাধীনতা দেব। কঠিন পরিস্থিতি থেকে ম্যাচ বের করার চ্যালেঞ্জ নিতে হবে। ভয়হীন ক্রিকেটের দিকে নজর থাকবে। ক্রিকেটারদের চাপে পড়তে দেওয়া যাবে না।”

প্রতিপক্ষ পাকিস্তানকে গুরুত্ব দিচ্ছেন রোহিত। বলে দিলেন, “এই ম্যাচে একটা চাপ থাকেই। তবে আমি চ্যালেঞ্জ হিসেবে দেখব। এই পাকিস্তান দল বেশ ভাল। চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দেবে। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সেই ২০০৭ থেকে খেলছি। বরাবরই ওরা ভাল দল। ম্যাচের দিন সেরা পারফরম্যান্সই ফারাক গড়ে দেয়। যেমন গত বিশ্বকাপে ওরা আমাদের হারিয়েছিল। তবে এশিয়া কাপে প্রথম ম্যাচটা আমরা জিতি। দ্বিতীয়টা ওরা। প্রতিপক্ষের শক্তি ও দুর্বলতা বুঝে নিতে পারলে কাজ অনেকটা সহজ হয়।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *